দক্ষিণ সুরমার দাউদপুরে হিন্দু সম্প্রদায়ের বসতবাড়িতে হামলা : সাড়ে ৪ লক্ষ টাকার ক্ষতি : লুটপাট (ভিডিওসহ)

প্রকাশিত: ৪:৪১ পূর্বাহ্ন, মে ৪, ২০২০

দক্ষিণ সুরমার দাউদপুরে হিন্দু সম্প্রদায়ের বসতবাড়িতে হামলা : সাড়ে ৪ লক্ষ টাকার ক্ষতি : লুটপাট (ভিডিওসহ)

সিলেটের দক্ষিণ সুরমায় জায়গা দখলের চেষ্টায় লিপ্ত থাকা একদল দুবৃর্ত্ত বসতবাড়িতে হামলা ও সাড়ে ৪ লক্ষ টাকার গাছপালা কর্তণ করার অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার ৯ নং দাউদপুর ইউনিয়নের পশ্চিম দাউদপুর গ্রামের সুরেন পালের বাড়িতে রবিবার বেলা ২ টায় এ ঘটনা ঘটে।

ভুক্তভোগি সুরেন পাল ঐ গ্রামের বিরেন্দ পালের ছেলে। সুরেন পাল ও তার ভাই সুরঞ্জন পাল, নিরঞ্জন পাল এবং চাচাতো ভাই বাবুল পাল বলেন, বীজেন্দ্র দাসের ছেলে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রাজীব দাশ, পূর্ব দাউদপুর গ্রামের মৃত মনাই মিয়ার ছেলে আলী আহমদ, মৃত কৃদরত উল্লার ছেলে মোবারক, গদাই চন্দ্রের ছেলে সত্যন্দ চন্দ, সত্যন্দ চন্দের ছেলে শিপুল চন্দ ও দীরেন চন্দের ছেলে সুবাস চন্দসহ এলাকার ২৫/৩০ জন লোক আচমকা তাদের বসতবাড়িতে হামলার পাশাপাশি জায়গা দখলের উদ্যোশে হামলা করে।

এ ছাড়া একটি ঘর সম্পূর্ণরূপে মাটির সাথে মিশিয়ে দেওয়াসহ মূল্যবান প্রায় অর্ধশত গাছ কর্তণ করে ফেলে।

এ সময় সুরেন পালের পরিবারসহ অন্যান্যরা প্রাণভয়ে ঘরের ভেতর অবস্থানের পর ৩৩৩ নাম্বারে ফোন করলে মোগলাবাজার থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছানোর পূর্বে আওয়ামী লীগ নেতা রাজিব দাশ পুলিশকে মাঝপথে আটকিয়ে রাজনৈতিক প্রভাব দেখিয়ে বিদায় করে দেয়।

বর্তমানে সুরেন পালের পরিবার পরিজন চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভোগছেন। হামলার ঘটনার পূর্বে সুরেন পালের ভাই নিরঞ্জন পালকে ২ মে দাউদপুর চৌধুরীবাজার ত্রিমুখী পয়েন্টে রাজিব দাস,রিপন দাস,আলী আহমদ, শিপুল চন্দ,সুবাস চন্দ হুমকি প্রদান করলে তিনি নিরুপায় হয়ে মোগলাবাজার থানায় ঐ দিনই লিখিত অভিযোগ প্রদান করলে থানা থেকে কোনো প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হয়নি।

সর্বশেষ রাজিব দাশ রাস্তা বানানোর অজুহাতে সুরেন পাল গংদের ভুমির উপরে থাকা গাছপালা ও ঘর ভাংচুরসহ তান্ডব চালায়।

এ ঘটনায় সুরেন পালের পক্ষে মোগলাবাজার থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলে জানা যায়।  প্রেস-বিজ্ঞপ্তি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ