Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/meta.php on line 1

Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/pomo/streams.php on line 1

Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/cache.php on line 1

Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/user.php on line 1

Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/widgets.php on line 1

Warning: trim() expects parameter 1 to be string, array given in /home/sylhetsu/public_html/wp-includes/rest-api/endpoints/class-wp-rest-menus-controller.php on line 1
নগরীর সুবিদবাজার থেকে হত্যা মামলার আসামী আটক – Daily Sylhet Surma
  • ৫ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ , ২২শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ , ১৩ই রজব, ১৪৪৪ হিজরি

নগরীর সুবিদবাজার থেকে হত্যা মামলার আসামী আটক

প্রকাশিত এপ্রিল ১৩, ২০১৮
নগরীর সুবিদবাজার থেকে হত্যা মামলার আসামী আটক

সিলেট সুরমা ডেস্ক : দক্ষিণ সুরমা থানার চাঞ্চল্যকর ললি বেগম হত্যা মামলার প্রধান আসামী আব্দুল মালিক (৩৮), কে সিলেট নগরীর সুবিদবাজার থেকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব)।বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ৯ টায় মেজর মো. শওকাতুল মোনায়েমের নেতৃত্বে র‌্যাব-৯ এর একটি দল অভিযান চালিয়ে নগরীর সুবিদবাজার এলাকাস্থ সোনার বাংলা কমিউনিটি সেন্টারের সামনে থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত ব্যাক্তি শাহপরাণ থানাধীন লামাপাড়া এলাকার মৃত ওহাব আলীর ছেলে।র‌্যাব-৯ এর সূত্রে জানা যায়- ২০১৭ সালের ১৬ মার্চ দক্ষিণ সুরমার পিরোজপুরে পূর্ব বিরোধের জের ধরে ধৃত আব্দুল মালিক ললি বেগম (৪৫) নামের এক মহিলা কে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে দ্রুত ঘটনার স্থল থেকে পালিয়ে যায়। এসময় সে আরো দুই জনকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে।পরে লোকজন ললি বেগমসহ আহতদেরকে উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসলে ১৮ মার্চ ২০১৭ ইং তারিখ রাতে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার ললি বেগমকে মৃত ঘোষণা করেন।এ ব্যাপারে র‌্যাব-৯ এর সিনিয়র সহকারি পরিচালক মো. মনিরুজ্জামান বলেন- উক্ত হত্যাকাণ্ডের পর থেকে আব্দুল মালিক আত্মগোপনে চলে যায় বলে সে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছে। গ্রেফতারের পর তাকে এসএমপির দক্ষিণ সুরমা থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে বলে জানান তিনি।