আগামী ১৪ জুলাই থেকে হজ ফ্লাইট শুরু 

প্রকাশিত: ৭:২২ অপরাহ্ণ, মার্চ ১, ২০১৮

আগামী ১৪ জুলাই থেকে হজ ফ্লাইট শুরু 

সিলেট সুরমা ডেস্ক : চলতি বছরের হজ ফ্লাইট শুরু হবে আগামী ১৪ জুলাই থেকে।বৃহস্পতিবার (১ মার্চ) সচিবালয়ে সরকারি ব্যবস্থাপনায় চলতি বছর হজে গমনেচ্ছুকদের মূল নিবন্ধন কার্যক্রমের উদ্বোধনের পর এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমান।ধর্মসচিব আনিছুর রহমান বলেন, মূল নিবন্ধন চলবে আগামী ১১ মার্চ পর্যন্ত। আর হজ ফ্লাইট শুরু হবে ১৪ জুলাই থেকে। এবার যাতে ফ্লাইট বিপর্যয় না হয় সে বিষয়ে নিবিড় পর্যবেক্ষণ করা হবে। এবার থার্ড ক্যারিয়ারের কথা চিন্তা করা হচ্ছে না।হজ গমনেচ্ছুক যারা ২৮ হাজার টাকা জমা দিয়ে প্রাক-নিবন্ধন করেছিলেন তারা এইবার সম্পূর্ণ টাকা প্রদান করে মূল নিবন্ধন করতে হবে। এজেন্সিগুলো যারা ভালোমানের সেবা দেবে এবার তাদের পুরস্কৃত করবে সরকার।এবার ৭৭৪টি হজ এজেন্সি হজ পরিচালনার সুযোগ পাবে জানিয়ে ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমান জানান, ২০১৭ সালে হজ কার্যক্রমে অংশগ্রহণকারী এজেন্সিগুলোর মধ্যে অনিয়মের অভিযোগে ১৯৩টির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে ৬৪টি এজেন্সির লাইসেন্স বাতিল, লাইসেন্স বাতিল ও জরিমানা, জামানত বাজেয়াপ্তসহ জরিমানা, ১৭টি এজেন্সির লাইসেন্স স্থগিত ও জরিমানা, ৪৯টির জরিমানা, তিরস্কার ও সতর্ক, ১২টিকে সতর্ক এবং ৫১টিকে অব্যাহতি দিয়েছে সরকার।

চলতি বছরেও এজেন্সিগুলো অনিয়ম করলে একই পরিণত হবে জানিয়ে সচিব বলেন, এবার সৌদি আরবে ভাড়া নেওয়া বাড়িগুলো আকস্মিক পরিদর্শন করা হবে। মানসম্মত না হলে লাইসেন্স বাতিল করবো।

গত ২৬ ফেব্রুয়ারি মন্ত্রীসভায় হজ প্যাকেজ-২০১৮ অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এবার সরকারি ব্যবস্থাপনায় প্যাকেজ-১ এর আওতায় হজে যেতে ৩ লাখ ৯৭ হাজার ৯২৯ টাকা লাগবে। যা গত বছর ছিল ৩ লাখ ৮১ হাজার ৫০৮ টাকা। আর প্যাকেজ-২ এর আওতায় ৩ লাখ ৩১ হাজার ৩৫৯ টাকা খরচ হবে, যা গত বছর ছিল ৩ লাখ ১৯ হাজার ৩৫৫ টাকা। আর বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় এবার সর্বনিম্ন ১ লাখ ৬৮ হাজার ২৭৭ টাকা খরচ হবে। যা গত বছর ছিল এক লাখ ৫৬ হাজার ৫৩৭ টাকা।

এদিকে যেসব ব্যক্তি ২০১৫, ২০১৬ ও ২০১৭ সালে হজ করেছেন অথবা ভিসা পেয়েও হজে যাননি তাদের মধ্যে যারা এবার হজ করবেন তাদের অতিরিক্ত ৪৬ হাজার ৯৩৫ টাকা পরিশোধ করতে হবে। কেউ আলাদা ফ্লাইটে হজে যেতে চাইলে অবশ্যই আলাদাভাবে নিবন্ধন করতে হবে।

সৌদি আরবের সঙ্গে হজ চুক্তি অনুযায়ী বাংলাদেশ থেকে এবার এক লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন হজ করতে পারবেন। এরমধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় সাত হাজার ১৯৮ জন এবং বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় এক লাখ ২০ হাজার জন।

চাঁদ দেখা সাপেক্ষে আগামী ২১ আগস্ট হজ হতে পারে।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ